০৯:৪১ অপরাহ্ন, বুধবার, ২১ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ৯ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

রিশাদের বোলিং নিয়ে যা বললেন সেইফার্ট

নিউজিল্যান্ডের মাটিতে প্রথম কোনো সিরিজ জয়ের সুযোগ ছিল বাংলাদেশের সামনে। কিন্তু বেরসিক বৃষ্টির কারণে সিরিজের দ্বিতীয় টি-টোয়েন্টি ম্যাচটি ভেস্তে গেছে। ১১তম ওভারের খেলা চলাকালে ম্যাচে হানা দেয় বৃষ্টি। স্বাগতিক কিউইরা তখন ২ উইকেটে ৭২ রান তুলেছিল। এরপর আর ম্যাচ মাঠে না গড়ানোয় পরিত্যক্ত হওয়ার ঘোষণা আসে। এর আগে কিউইদের ঝোড়ো ব্যাটিংয়ের লাগাম টেনে ধরেছিলেন টাইগার লেগ-স্পিনার রিশাদ হোসেন। পরবর্তীতে তাকে নিয়ে প্রশংসা করেছেন কিউই ব্যাটসম্যান টিম সেইফার্ট।

এদিন (শুক্রবার) আগে ব্যাট করতে নেমে শুরুতেই ফিন এলেনের উইকেট হারিয়ে চাপে পড়ে যায় স্বাগতিকরা। শুরুর সেই ধাক্কা সামাল দেন ড্যারিল মিচেল ও সেইফার্ট। মিচেল দেখে-শুনে খেললেও, তাণ্ডব শুরু করেন সেইফার্ট। পরবর্তীতে তানজিম হাসান সাকিবের বলে ২৩ বলে ৪৩ রান সেইফার্ট ফেরায় লড়াইয়ে ফেরে বাংলাদেশও। এরপরই রিশাদের ঝলক শুরু। উইকেট না পেলেও তিনি নিয়ন্ত্রিত বোলিং করেছেন।

ম্যাচ শেষে রিশাদকে নিয়ে সেইফার্ট বলেন, ‘সে ভালো বোলিং করেছে। এমনভাবে বোলিং করছিল যেন বাতাসের কারণে সুবিধা পায়। বৃষ্টির আগে আজ বেশ বাতাস ছিল। তাই সামনের দিকে খেলা অবশ্যই অনেক কঠিন হয়ে পড়ে। অবশ্যই সীমানা (বাউন্ডারি) ঠিকঠাকই ছিল। তাই জায়গা অনুযায়ী বোলিং করতে পারায় সে (রিশাদ) দারুণ করেছে। তবে আমার মনে হয় ছেলেরা ঠিকমতোই খেলেছে। সবমিলিয়ে কৃতিত্ব দিতেই হবে তাকে। প্রথম দুই ওভারে সে অসাধারণ বোলিং করেছে।’

পাওয়ার-প্লের পর নিউজিল্যান্ডের ইনিংসের লাগাম টেনে ধরেন লেগ স্পিনার রিশাদ হোসেন। কোনো উইকেট না পেলেও ৩ ওভারে ৯টি ডট বলের সাহায্যে মাত্র ১০ রান দেন। খেলা শুরু হলে রিশাদের বোলিংয়ের কারণে বিপদে পড়তে হতো স্বাগতিকদের। কারণ, দৈর্ঘ্য কমে ৫ ওভারের ম্যাচ হলে ৪৬ রান করতে হতো বাংলাদেশকে।

Write Your Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Save Your Email and Others Information

About Author Information

Md. Mofajjal

আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসে ইন্টারন্যাশনাল রিলেশনস রিপোর্টার্স ফোরামের শ্রদ্ধা

রিশাদের বোলিং নিয়ে যা বললেন সেইফার্ট

Update Time : ০৭:১৭:৩৮ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ২৯ ডিসেম্বর ২০২৩

নিউজিল্যান্ডের মাটিতে প্রথম কোনো সিরিজ জয়ের সুযোগ ছিল বাংলাদেশের সামনে। কিন্তু বেরসিক বৃষ্টির কারণে সিরিজের দ্বিতীয় টি-টোয়েন্টি ম্যাচটি ভেস্তে গেছে। ১১তম ওভারের খেলা চলাকালে ম্যাচে হানা দেয় বৃষ্টি। স্বাগতিক কিউইরা তখন ২ উইকেটে ৭২ রান তুলেছিল। এরপর আর ম্যাচ মাঠে না গড়ানোয় পরিত্যক্ত হওয়ার ঘোষণা আসে। এর আগে কিউইদের ঝোড়ো ব্যাটিংয়ের লাগাম টেনে ধরেছিলেন টাইগার লেগ-স্পিনার রিশাদ হোসেন। পরবর্তীতে তাকে নিয়ে প্রশংসা করেছেন কিউই ব্যাটসম্যান টিম সেইফার্ট।

এদিন (শুক্রবার) আগে ব্যাট করতে নেমে শুরুতেই ফিন এলেনের উইকেট হারিয়ে চাপে পড়ে যায় স্বাগতিকরা। শুরুর সেই ধাক্কা সামাল দেন ড্যারিল মিচেল ও সেইফার্ট। মিচেল দেখে-শুনে খেললেও, তাণ্ডব শুরু করেন সেইফার্ট। পরবর্তীতে তানজিম হাসান সাকিবের বলে ২৩ বলে ৪৩ রান সেইফার্ট ফেরায় লড়াইয়ে ফেরে বাংলাদেশও। এরপরই রিশাদের ঝলক শুরু। উইকেট না পেলেও তিনি নিয়ন্ত্রিত বোলিং করেছেন।

ম্যাচ শেষে রিশাদকে নিয়ে সেইফার্ট বলেন, ‘সে ভালো বোলিং করেছে। এমনভাবে বোলিং করছিল যেন বাতাসের কারণে সুবিধা পায়। বৃষ্টির আগে আজ বেশ বাতাস ছিল। তাই সামনের দিকে খেলা অবশ্যই অনেক কঠিন হয়ে পড়ে। অবশ্যই সীমানা (বাউন্ডারি) ঠিকঠাকই ছিল। তাই জায়গা অনুযায়ী বোলিং করতে পারায় সে (রিশাদ) দারুণ করেছে। তবে আমার মনে হয় ছেলেরা ঠিকমতোই খেলেছে। সবমিলিয়ে কৃতিত্ব দিতেই হবে তাকে। প্রথম দুই ওভারে সে অসাধারণ বোলিং করেছে।’

পাওয়ার-প্লের পর নিউজিল্যান্ডের ইনিংসের লাগাম টেনে ধরেন লেগ স্পিনার রিশাদ হোসেন। কোনো উইকেট না পেলেও ৩ ওভারে ৯টি ডট বলের সাহায্যে মাত্র ১০ রান দেন। খেলা শুরু হলে রিশাদের বোলিংয়ের কারণে বিপদে পড়তে হতো স্বাগতিকদের। কারণ, দৈর্ঘ্য কমে ৫ ওভারের ম্যাচ হলে ৪৬ রান করতে হতো বাংলাদেশকে।