ঢাকা ১১:৫৬ অপরাহ্ন, সোমবার, ২২ জুলাই ২০২৪
সংবাদ শিরোনাম :

যৌনকর্মীদের মূলধারায় ফেরাতে করণীয় নির্ধারণের পরামর্শ

রাষ্ট্রের নাগরিক হিসেবে একজন যৌনকর্মীরও সাংবিধানিক অধিকার এবং মানবাধিকার রয়েছে। তাই যৌনকর্মীদের বর্তমান অবস্থার সুনির্দিষ্ট চিত্র তুলে এনে তাদের মূল ধারায় ফিরিয়ে আনার ক্ষেত্রে করণীয় নির্ধারণে গণমাধ্যমের প্রতি আহ্বান জানিয়েছে নারীদের নিয়ে কাজ করা নারীপক্ষ।

মঙ্গলবার (১৬ জানুয়ারি) রাজধানীর ধানমন্ডিতে নারীপক্ষ’র নাসরীন হক সভাকক্ষে আয়োজিত অনুষ্ঠানে এই আহ্বান জানানো হয়।

নারীপক্ষর প্রান্তিক নারীর অধিকার আন্দোলন শক্তিশালীকরণ প্রকল্প’র আওতায় ‘যৌনকর্মীদের মানবাধিকার রক্ষার আন্দোলন সমর্থনে গণমাধ্যমের ভূমিকা’ শীর্ষক এই সভার আয়োজন করা হয়।

সভায় বক্তারা বিভিন্ন সুপারিশ তুলে ধরে বলেন, যৌনকর্মীদের সংশ্লিষ্ট বিষয় নিয়ে নীতিনির্ধারকের সঙ্গে বারংবার আলোচনা এবং তাদের দৃষ্টিগোচর করাতে হবে। সংশ্লিষ্ট ইস্যুতে নারী ও শিশুবিষয়ক মন্ত্রণালয় এবং সমাজকল্যাণ মন্ত্রণালয়কে যুক্ত করতে হবে। যৌনকর্মীদের জন্য দেশে কী কী পলিসি আছে তা নিয়ে কাজ করতে হবে। এছাড়া যৌনকর্মী ইস্যুটিতে সমাজের সর্বস্তরে যে ধোঁয়াশা আছে তা চিহ্নিত করে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণে উদ্যোগী হতে হবে।

বক্তারা আরও বলেন, ইস্যুটি নাগরিক ইস্যু এবং মানবাধিকারের ইস্যু। তাই এখানে গণমাধ্যমের কর্মীরা নিজেদের শুধু গণমাধ্যমের প্রতিনিধি নয়, একজন মানবাধিকার কর্মী হিসেবে নিজেদের যুক্ত করে পদক্ষেপ নেওয়া উচিত।

নারীপক্ষর সদস্য মাহবুবা মাহমুদ লীনার সঞ্চালনায় সভায় উপস্থিত ছিলেন, আয়োজক সংগঠনের সভানেত্রী গীতা দাস, দৈনিক ভোরের কাগজ সম্পাদক ও জাতীয় প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক শ্যামল দত্তসহ গণমাধ্যমের মোট ১৩ প্রতিনিধি, চার যৌনকর্মী, সংহতির নির্বাহী কমিটির চার সদস্য এবং নারীপক্ষর সদস্য শিরীন হক।

আপলোডকারীর তথ্য

জনপ্রিয় সংবাদ

প্রধানমন্ত্রীর ত্রাণ তহবিল থেকে চিকিৎসার চেক হস্তান্ত, সাবেক এম পি নুরুল আমিন রুহুল

যৌনকর্মীদের মূলধারায় ফেরাতে করণীয় নির্ধারণের পরামর্শ

আপডেট টাইম : ০৪:১৫:০৩ অপরাহ্ন, বুধবার, ১৭ জানুয়ারী ২০২৪

রাষ্ট্রের নাগরিক হিসেবে একজন যৌনকর্মীরও সাংবিধানিক অধিকার এবং মানবাধিকার রয়েছে। তাই যৌনকর্মীদের বর্তমান অবস্থার সুনির্দিষ্ট চিত্র তুলে এনে তাদের মূল ধারায় ফিরিয়ে আনার ক্ষেত্রে করণীয় নির্ধারণে গণমাধ্যমের প্রতি আহ্বান জানিয়েছে নারীদের নিয়ে কাজ করা নারীপক্ষ।

মঙ্গলবার (১৬ জানুয়ারি) রাজধানীর ধানমন্ডিতে নারীপক্ষ’র নাসরীন হক সভাকক্ষে আয়োজিত অনুষ্ঠানে এই আহ্বান জানানো হয়।

নারীপক্ষর প্রান্তিক নারীর অধিকার আন্দোলন শক্তিশালীকরণ প্রকল্প’র আওতায় ‘যৌনকর্মীদের মানবাধিকার রক্ষার আন্দোলন সমর্থনে গণমাধ্যমের ভূমিকা’ শীর্ষক এই সভার আয়োজন করা হয়।

সভায় বক্তারা বিভিন্ন সুপারিশ তুলে ধরে বলেন, যৌনকর্মীদের সংশ্লিষ্ট বিষয় নিয়ে নীতিনির্ধারকের সঙ্গে বারংবার আলোচনা এবং তাদের দৃষ্টিগোচর করাতে হবে। সংশ্লিষ্ট ইস্যুতে নারী ও শিশুবিষয়ক মন্ত্রণালয় এবং সমাজকল্যাণ মন্ত্রণালয়কে যুক্ত করতে হবে। যৌনকর্মীদের জন্য দেশে কী কী পলিসি আছে তা নিয়ে কাজ করতে হবে। এছাড়া যৌনকর্মী ইস্যুটিতে সমাজের সর্বস্তরে যে ধোঁয়াশা আছে তা চিহ্নিত করে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণে উদ্যোগী হতে হবে।

বক্তারা আরও বলেন, ইস্যুটি নাগরিক ইস্যু এবং মানবাধিকারের ইস্যু। তাই এখানে গণমাধ্যমের কর্মীরা নিজেদের শুধু গণমাধ্যমের প্রতিনিধি নয়, একজন মানবাধিকার কর্মী হিসেবে নিজেদের যুক্ত করে পদক্ষেপ নেওয়া উচিত।

নারীপক্ষর সদস্য মাহবুবা মাহমুদ লীনার সঞ্চালনায় সভায় উপস্থিত ছিলেন, আয়োজক সংগঠনের সভানেত্রী গীতা দাস, দৈনিক ভোরের কাগজ সম্পাদক ও জাতীয় প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক শ্যামল দত্তসহ গণমাধ্যমের মোট ১৩ প্রতিনিধি, চার যৌনকর্মী, সংহতির নির্বাহী কমিটির চার সদস্য এবং নারীপক্ষর সদস্য শিরীন হক।